শনিবার, ১৬ জানুয়ারী ২০২১, ৪ মাঘ ১৪২৭

অনলাইন ডেস্ক

Nov. 28, 2020, 12:10 p.m.

সহকর্মীদের দেওয়া আগুনে মৃত্যু রিয়াদের
সহকর্মীদের দেওয়া আগুনে মৃত্যু রিয়াদের
রিয়াদ হোসেন - ছবি:

চার দিন মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ে অবশেষে মারাই গেলেন রাজধানীতে ফিলিং স্টেশনে সহকর্মীদের দেওয়া আগুনে দগ্ধ যুবক রিয়াদ হোসেন (২০)।

শুক্রবার দিবাগত রাত সাড়ে ১২টার দিকে শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক ইনস্টিটিউটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

মঙ্গলবার থেকে এই হাসপাতালেই চিকিৎসাধীন ছিলেন রিয়াদ।
ঢাকার জুরাইনের কমিশনার রোডে পরিবারের সঙ্গে থাকতেন রিয়াদ। তার বাবা ফরিদ মিয়া একজন গাড়িচালক। রিয়াদ সিদ্ধেশ্বরী কলেজে অনার্সের শিক্ষার্থী ছিলেন।

গাড়িচালক বাবাকে আর্থিকভাবে সহযোগিতা করার জন্য পড়াশোনার পাশাপাশি জুরাইনের ‘এস আহমেদ’ ফিলিং স্টেশনে ‘পার্টটাইম’ চাকরি নিয়েছিলেন রিয়াদ হোসেন। মঙ্গলবার ভোরে গুরুতর দগ্ধ অবস্থায় শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক ইনস্টিটিউটে ভর্তি করা হয় তাকে।

এ ঘটনায় রিয়াদের বাবার করা মামলায় মাহমুদুল হাসান ইমন (২২), ফাহাদ আহমদ পাভেল (২৮) ও শহিদুল ইসলাম রনিকে (১৮) গ্রেপ্তার করা হয়। 

প্রসঙ্গত, ওই ফিলিং স্টেশনে রিয়াদসহ চারজন অপারেটরের দায়িত্ব পালন করছিলেন। ইমন রাতে ঘুমিয়ে পড়েছিল। রিয়াদ ইমনকে ঘুম থেকে জাগিয়েছিলেন বলে সে ক্ষিপ্ত হয়ে তার গায়ে আগুন দিয়ে দেয়।


ভোরের আলো/ভিঅ/২৭/২০২০