অনলাইন ডেস্ক

July 13, 2019, 10:25 p.m.

মোবাইল ব্যবহারের প্রতিক্রিয়ায়, শিং গজাচ্ছে তরুণদের মাথায়!
মোবাইল ব্যবহারের প্রতিক্রিয়ায়, শিং গজাচ্ছে তরুণদের মাথায়!
মোবাইল ব্যবহারের প্রতিক্রিয়ায়, শিং গজাচ্ছে তরুণদের মাথায়! - ছবি: ভোরের আলো

মোবাইল ফোন মানুষের জীবনকে বদলে দিয়েছে একেবারে। তবে এ পরিবর্তন যে শুধু সাংস্কৃতিকভাবে না শারীরিকভাবেও ঘটছে- তা জানিয়ে এক গবেষণা প্রতিবেদন প্রকাশ হয়েছে। এতে বলা হয়েছে, তরুণদের মাথার পেছনে মোবাইল ফোন ব্যবহারের প্রতিক্রিয়া হিসেবে শিং গজাচ্ছে। জৈব রসায়নের এক গবেষণায় দেখা গেছে মোবাইল ফোন ব্যবহারের কারণে তরুণদের মাথার পেছনে শিং আকৃতির এক হাড় গজাচ্ছে। গবেষকরা বলছেন, মাথা সামনের দিকে ঝুঁকে থাকার ফলে শরীরের ভর শীর দাঁড়া থেকে সরে মাথার পেছনের পেশিতে গিয়ে পড়ে, যার ফলে ঠিক ঘাড় এবং মাথার পেছন দিকে ছোট হাড়ের মতো একটি অংশ বেড়ে ওঠে। তারা একে তুলনা করেছেন চামড়ায় চাপ বাড়লে যেমন কড়া পড়ে তার সঙ্গে। অস্ট্রেলিয়ার কুইন্সল্যান্ডে অবস্থিত সানশাইন কোস্ট বিশ্ববিদ্যালয়ে এ গবেষণা হয়। প্রতিবেদনে বলা হয়, তরুণরা স্মার্টফোন অথবা অন্য কোনো আধুনিক যন্ত্র ব্যবহারের জন্য সামনের দিকে ঝুঁকে থাকে। কারণ এসব যন্ত্রের মনিটর হয় ছোট। যা তাদের শরীরে নতুন একটি হাড় গজানোর কারণ। গবেষণাটি গত বছর সম্পন্ন হলেও সম্প্রতি বিবিসিতে প্রকাশ পাওয়ার পর তা আলোচনায় আসে। তারা তিন বছর ধরে এ গবেষণা পরিচালনা করে। গবেষক ডেভিড শাহার বলেন, এ শিং পাঁচ থেকে তিন মিলিমিটার পর্যন্ত বড় হয়। যা সর্বোচ্চ ১০ মিলিমিটার হতে পারে। আরেক গবেষক মার্ক সায়েরস এ বর্ধিত হাড় শরীরের জন্য বিপজ্জনক নয় বলে জানান। খবর ওয়াশিংটন পোস্ট।