মঙ্গলবার, ২৪ নভেম্বার ২০২০, ১১ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

নিজস্ব প্রতিবেদক

Oct. 19, 2020, 10:02 p.m.

স্বাস্থ্যবিধি মেনে পূজা উদযাপন করার আহ্বান
স্বাস্থ্যবিধি মেনে পূজা উদযাপন করার আহ্বান
সোমবার বেলা ১১ টায় বরিশাল মেট্রোপলিটনের কাউনিয়া থানায় - ছবি:

বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের উপ-কমিশনার (উত্তর) মো. খাইরুল আলম বলেছেন, ধর্ম যার যার উৎসব সবার। সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির দেশ আমাদের বাংলাদেশ। হিন্দু ধর্মের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব শারদীয় দুর্গাপূজা। পূজা চলাকালীন সময়ে পুলিশের মোবাইল টিম, ভিডিও ক্যামেরা টিম, সাদা পোষাকে আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী দায়িত্বে থাকবে। তবে করোনা ভাইরাসের কারণে প্রতিবছরের ন্যায় এবার মন্ডপের ভিতরে স্থায়ী দায়িত্বে পুলিশ থাকবে না। আমাদের রয়েছে একটি নিজস্ব ইতিহাস ঐতিহ্য। যার কারণে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর নের্তৃত্বে মাত্র ৯ মাসে পরাধীনতার গ্লানি থেকে আমরা মুক্তি পেয়েছি। মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় উদ্বুদ্ধ হয়ে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নের্তৃত্বে আমরা যে কোন সমস্যা মোকাবেলা করতে সক্ষম। মহামারী করোনাকালে ইসলাম ধর্মসহ সকল ধর্মের অনুষ্ঠান সংক্ষিপ্ত আকারে করা হয়েছে। যাতে করোনা ভাইরাস ছড়িয়ে না পড়ে। সুতরাং পূজামন্ডপে স্বাস্থ্যবিধি মেনে পূজা উদযাপন করুন।

সোমবার বেলা ১১ টায় বরিশাল মেট্রোপলিটনের কাউনিয়া থানায় অফিসার ইনচার্জ আজিমুল করিমের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত শারদীয় দুর্গাপূজা উদযাপন কমিটির নের্তৃবৃন্দের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

এ সময় তিনি আরও বলেন, সবাই যাতে নিরাপত্তা সহকারে নির্বিঘেœ হিন্দু ধর্মের বৃহত্তম উৎসব দুর্গাপূজা উদযাপন করতে পারেন সে জন্য পুলিশ সার্বক্ষণিক আপনাদের সেবা দিতে প্রস্তুত থাকবে। পূজা চলাকালীন সময়ে জরুরী অবস্থা মোকাবেলার জন্য পূজা মন্ডপে এ্যাম্বুলেন্স, ফায়ারসার্ভিস, বিদ্যুত বিভাগের ফোন নাম্বার দৃশ্যমান স্থানে সাটিয়ে রাখতে হবে। পূজা মন্ডপে আলাদা পোষাকধারী স্বেচ্ছাসেবক রাখতে হবে। মন্ডপের ভিতরে একসঙ্গে ২০ জনের বেশি অবস্থান করা যাবে না। প্রত্যেক মন্ডপে প্রবেশ এবং বের হওয়ার পথে হ্যান্ড স্যানিটাইজার এর ব্যাবস্থা করতে হবে। কোন রকম পটকা বা আতশবাজি ফোটানো যাবে না। মাস্ক ছাড়া মন্ডপে প্রবেশ করতে দেয়া হবে না। মন্ডপে অগ্নিনির্বাপক যন্ত্র ও বিশুদ্ধ পানি রাখতে হবে। পূজা মন্ডপের যে কোন সমস্যার বিষয়ে পুলিশকে অবহিত করবেন। আমরা আপনাদের সেবায় নিয়োজিত থাকবো।

কাউনিয়া থানার সহকারী কমিশনার মাসুদ রানা বলেছেন, আমাদের প্রত্যাশা আপনাদের প্রার্থনা। খেয়াল রাখতে হবে আমরা কল্যাণের জন্য পূজা করবো সেখানে যেন কোন অকল্যাণ না হয়। আপনাদের যে কোন সমস্যার বিষয়ে পুলিশকে জানালে পুলিশ অতিদ্রুত সেবা পৌঁছে দেবে। মতবিনিময় সভায় কাউনিয়া থানাধীন ১৩ টি পূজামন্ডপের নের্তৃবৃন্দসহ কাউনিয়া থানার অন্যান্য পুলিশ সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।