শুক্রবার, ২৭ নভেম্বার ২০২০, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

অনলাইন ডেস্ক

Oct. 25, 2020, 2:08 p.m.

পদ্মা সেতুর ৩৪তম স্প্যানে  দৃশ্যমান ৫ হাজার ১০০ মিটার
পদ্মা সেতুর ৩৪তম স্প্যানে  দৃশ্যমান ৫ হাজার ১০০ মিটার
পদ্মা সেতুর ৫ হাজার ১০০ মিটার দৃশ্যমান - ছবি:

নতুন একটি স্প্যান বসানো হয়েছে নির্মাণাধীন পদ্মা সেতুতে। মুন্সিগঞ্জের লৌহজং উপজেলার মাওয়া প্রান্তে পদ্মা সেতুর ৭ ও ৮ নম্বর পিলারের ওপর বসানো ৩৪তম স্প্যানে সেতুটি ৫ হাজার ১০০ মিটার দৃশ্যমান।

শনিবার বিকেলে মুন্সিগঞ্জের মাওয়া কনস্ট্রাকশন ইয়ার্ড থেকে ধূসর রঙের ১৫০ মিটার দৈর্ঘ্য ও ৩ হাজার ১৪০ টন ওজনের দেড়শো মিটার দৈর্ঘ্যের  ‘টু-এ’ স্প্যান নিয়ে রওনা দেয় ৩ হাজার ৬০০ টন ধারণ ক্ষমতাসম্পন্ন 'তিয়ান-ই' ভাসমান ক্রেন।

রোববার দুপুর সোয়া ১০টার দিকে স্প্যানটি বসানো সম্পন্ন হয় বলে নিশ্চিত করেন পদ্মা সেতু প্রকল্পের সংশ্লিষ্ট প্রকৌশলীরা।  এর আগে ১৯ অক্টোবর পদ্মা সেতুর ৩৩তম স্প্যান বসানো হয়।
প্রায় এক কিলোমিটার দূরত্ব অতিক্রম করে সেতুর ৭ ও ৮ নম্বর পিলারের কাছে পৌঁছানোর পর আবহাওয়া অনুকূলে না থাকায় ওই দিন স্প্যানটি বসানো সম্ভব হয়নি।

৩৪তম স্প্যান বসানোর ফলে বাকি রয়েছে আর সাতটি স্প্যান। মূল সেতুর মোট স্পেন ৪১ টি। অবশিষ্ট সাতটি স্প্যান তৈরি করে মাওয়া কনস্ট্রাকশন ইয়ার্ডে রাখা হয়েছে। ডিসেম্বরের মধ্যে সব স্প্যান স্থাপন সম্ভব হবে বলে আশা করা যায়।

২০১৪ সালের ডিসেম্বরে পদ্মাসেতুর নির্মাণকাজ শুরু হয়। মূল সেতু নির্মাণের জন্য কাজ করছে চীনের ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান চায়না মেজর ব্রিজ ইঞ্জিনিয়ারিং কোম্পানি ও নদীশাসনের কাজ করছে দেশটির আরেকটি প্রতিষ্ঠান সিনো হাইড্রো করপোরেশন।

৬ দশমিক ১৫ কিলোমিটার দীর্ঘ এ বহুমুখী সেতুর মূল আকৃতি হবে দোতলা। কংক্রিট ও স্টিল দিয়ে নির্মিত হচ্ছে এ সেতুর কাঠামো।


ভোরের আলো/ভিঅ/২৫/২০২০